বিষয়গুলো আমাদের নাটকে নেতিবাচক প্রভাব ফেলেছে

বিষয়গুলো আমাদের নাটকে নেতিবাচক প্রভাব ফেলেছে

513
SHARE
Mamunor-Rashid

-মামুনুর রশীদ

অভিনয় এবং সাংগঠনিক বিভিন্ন কর্মকাণ্ড নিয়ে ব্যস্ত থাকতে হয় জনপ্রিয় অভিনেতা মামুনুর রশীদকে। মিডিয়ার চলমান বিভিন্ন বিষয় নিয়ে কথা বলেছেন তিনি-

আনন্দ আলো: ক’দিন আগে পাঁচ দফা দাবিতে শিল্পীদের যে আন্দোলন হলো তা নিয়ে কিছু বলুন-

মামুনুর রশীদ: অভিনয়শিল্প বাঁচাতে, শিল্পী, নির্মাতা ও কুশীলবদের অধিকার রক্ষার জন্য এই আন্দোলন। এখানে কোনো ব্যক্তিস্বার্থ জড়িত নেই। ১৩টি সংগঠনের সমন্বয়ে এই আন্দোলন শুরু হয়েছে। আমরা চাই- পুরো ইন্ডাস্ট্রিতে একটা নিয়ম থাকুক।

আনন্দ আলো: পাঁচ দফা দাবি তে কি কি আছে?

মামুনুর রশীদ: দেশের বেসরকারি টিভি চ্যানেলে বাংলায় ডাবিংকৃত বিদেশি সিরিয়াল/অনুষ্ঠান প্রচার বন্ধ করতে হবে। টেলিভিশন অনুষ্ঠান নির্মাণ ক্রয় ও প্রচারের ক্ষেত্রে এজেন্সির হস্তক্ষেপ ব্যতীত চ্যানেলের অনুষ্ঠান সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ দ্বারা নিয়ন্ত্রিত করতে হবে। টেলিভিশন শিল্পের সর্বক্ষেত্র এ. আই.টির ন্যূনতম ও যৌক্তিক হার পুনঃনির্ধারণ করতে হবে। দেশের টেলিভিশন শিল্পে বিদেশি শিল্পী ও কলাকুশলীদের অবৈধভাবে কাজ করা বন্ধ করতে হবে। বিশেষ প্রয়োজনে কাজ করতে হলে, সরকারের অনুমতি এবং সংশ্লিষ্ট সংগঠনসমূহে নিবন্ধিত হতে হবে। ডাউনলিংক চ্যানেলের মাধ্যমে বিদেশি চ্যানেলে দেশীয় বিজ্ঞাপন প্রচার বন্ধ করতে হবে।

আনন্দ আলো: বর্তমানের টিভি নাটক নিয়ে আপনার অভিমত কী?

মামুনুর রশীদ: বর্তমানে অনেক ভালো ভালো নাটক নির্মাণ হচ্ছে। তারপরও কিছু যে মানহীন নাটক নির্মাণ হয় না তা বলবো না। মানহীন নাটকের জন্য প্রধান সমস্যা হলো বাজেট। স্বল্প বাজেটের নাটকগুলোই মানহীন। এছাড়া কিছু নাটক মানহীন হচ্ছে ভালো গল্প ও দক্ষ নির্মাতার অভাবে। চ্যানেলগুলো এখন নাটকে বাজেট অনেক কম দিচ্ছে। ভালো একটি নাটক নির্মাণের জন্য বাজেট গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। এদিকে এজেন্সিগুলোর হস্তক্ষেপে অদক্ষ পরিচালকের নাটক প্রচার হচ্ছে। এগুলো আমাদের নাটকে নেতিবাচক প্রভাব ফেলেছে।

আনন্দ আলো: বর্তমানের শিল্পীদের বিষয়ে কিছু বলবেন-

মামুনুর রশীদ: দু’একটি নাটকে কাজ করে কেউ শিল্পী হয় না। শিল্পীসত্তা একটি বিশাল বিষয়। নামের সঙ্গে শিল্পী যোগ না করে শিল্পী হয়ে ওঠার লক্ষ্য থাকতে হবে। কিন্তু এই সময়ে এসে শিল্পীদের মধ্যে এই বিষয়টি খুব কম দেখা যায়। অধিকাংশই রাতারাতি তারকা হওয়ার পিছনে ছোটে।

আনন্দ আলো: বর্তমানে আপনার ব্যস্ততা কী নিয়ে?

মামুনুর রশীদ: এখন অভিনয় কম করছি। বিশেষ দিবস বা ভালো গল্প হলে টিভি নাটকে অভিনয় করি। এছাড়া আমার মঞ্চের কাজ নিয়েই ব্যস্ত থাকি।

চরিত্র গুলো সবই সিনেমার!

Mousumi-Hamidসিনেমাপাগল একটি পরিবারকে কেন্দ্র করে গড়ে উঠেছে নতুন ধারাবাহিক ‘সিনেম্যাটিক’-এর গল্প। এ পরিবারের প্রতিটি সদস্যই কোনো না কোনোভাবে সিনেমার সঙ্গে জড়িত। এ শিল্প নিয়েই তাদের যত জল্পনা কল্পনা। পরিবার, শিল্প ও জীবনের নানা টানাপড়েনের চিত্র দেখা যাবে ধারাবাহিকটিতে। এতে একটি চরিত্রে অভিনয় করেছেন মৌসুমী হামিদ। তিনি বলেন, ধারাবাহিক নাটকের গল্পে বৈচিত্র্য থাকে না বলে অনেকে বলেন। তবে এটি ভিন্ন ধাঁচের একটি গল্পই আমি বলবো। অনেক চমক থাকবে এ ধারাবাহিকটিতে। কাজ করে বেশ আনন্দ পাচ্ছি, বেশ ভালো লাগছে। আশা করছি দর্শকেরও ভালো লাগবে। মৌসুমী হামিদ ছাড়া এ নাটকে আরো অভিনয় করছেন আবুল হায়াত, সাজু খাদেম, আ খ ম হাসান, অপর্ণা ঘোষ, আফরান নিশো, আরফান আহমেদ, আনন্দ খালেদ, জামাল রাজা, ইভানা প্রমুখ। এটি নির্মাণ করছেন ইমরাউল রাফাত। শিগগিরই আরটিভিতে ‘সিনেম্যাটিক’-এর প্রচার শুরু হবে বলে নির্মাতা সূত্রে জানা গেছে।

এ নাটক ছাড়া বর্তমানে ‘স্বর্ণলতা’, ‘টাইম’সহ বেশ কয়েকটি ধারাবাহিকে অভিনয় করছেন মৌসুমী হামিদ। নাটকের পাশাপাশি চলচ্চিত্রেও অভিনয় করেছেন লাক্স-চ্যানেল আই সুপারস্টার প্রতিযোগিতা থেকে আসা এ অভিনেত্রী। ‘ব্ল্যাকমেইল’, ‘পূর্ণদৈর্ঘ্য প্রেম কাহিনী টু’, ‘জালালের গল্প’সহ বেশ কয়েকটি ছবিতে অভিনয় করে বেশ আলোচনায় এসেছেন রোশনী খ্যাত এ অভিনেত্রী। শিগগিরই সুমন আনোয়ারের পরিচালনায় ‘কয়লা’ নামের একটি ছবিতে অভিনয় করার কথা রয়েছে মৌসুমীর।