কথার জাদুতে জমলো মেলা

কথার জাদুতে জমলো মেলা

577
SHARE
Robindra_nath_mela

তিনি তো আসলে কথার জাদুকর। জাদু যেমন মানুষকে অবাক করে, বিস্মিত করে, বিমোহিত করে, তাঁর কথাও তেমনই। তবে জাদু আসলেই জাদুই… এর কোন কার্যকর ভূমিকা থাকে না মানুষের বেলায়। জাদু দেখলাম, আনন্দ পেলাম, বিমোহিত হলাম। ব্যস ঐ পর্যনত্মই। কিন্তু তাঁর কথার জাদুতে সত্যি সত্যি জাদু আছে। এই জাদু মানুষের জীবনে কার্যকর ভূমিকাও রাখে। সে কারনে তিনি যেখানেই উপস্থিত হন ভক্ত স্বজনেরা সুযোগ পেলেই তার সান্নিধ্য পেতে ছুটে আসেন। তিনি ঘন্টার পর ঘন্টা কথা বললেও এতটুকু বিরক্তি আসে না। মনে হয় এত তাড়াতাড়ি কথা শেষ হয়ে গেল। ইস, আরেকটু যদি বেশী করে বলতেন। আসলে কি বলেন তিনি? আমরা যা জানিনা তাই কি তিনি বলেন? বোধকরি না। আমরা যা জানি তাই তিনি বলেন। কিন্তু তাঁর বলার মধ্যে থাকে মায়া, থাকে সাহস, থাকে ভালোবাসা আর প্রেরনার দ্যুতি। তাইতো শুধু তাঁর কথা শোনার জন্য বিমুগ্ধ ছাত্র-ছাত্রীরাই নন অসংখ্য ভক্ত অনুরাগী তাঁকে দেখলেই ছুটে আসেন।

তিনি আর কেউ নন আমাদের প্রিয় শিক্ষক, প্রিয় স্বজন, প্রিয় অভিভাবক, আব্দুল্লাহ আবু সায়ীদ। যিনি তাঁর ছাত্র-ছাত্রীদের মাঝে বইপড়া আন্দোলন ছড়িয়ে দিয়েছেন। যে আন্দোলন তাঁরই গড়া বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্রের সহায়তায় এখন সারাদেশে জ্ঞানের আলো ছড়াচ্ছে। যেখানে পাঠাগার, জ্ঞানের আসর সেখানেই যেন খুঁজে পাওয়া যায় তাঁকে। আর যদি তিনি স্বশরীরে কোনো অনুষ্ঠানে উপস্থিত হন তাহলে তো অনুষ্ঠানের ঔজ্জ্বলই বেড়ে যায়।

৮মে চ্যানেল আই প্রাঙ্গনে রবীন্দ্রমেলার মঞ্চে তিনি এবার উপস্থিত ছিলেন। কবি গুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ১৫৫ তম জন্ম বার্ষিকী পালন উপলক্ষে বরাবরের মতো এই মেলার আয়োজন করেছিল চ্যানেল আই। দেশব্যাপী শিক্ষার আলো পৌছে দেয়া এবং রবীন্দ্রগবেষনায় বিশেষ অবদানের স্বীকৃতি স্বরূপ এবার শিক্ষাবিদ আব্দুল্লাহ আবু সায়ীদকে আজীবন সম্মাননা প্রদান করা হয়। একই সাথে সম্মাননা পান বিশিষ্ট রবীন্দ্র সঙ্গীত শিল্পী তপন মাহমুদ। সম্মাননা গ্রহনের এই অনুষ্ঠানে কথার জাদুতে আরেকবার সবাইকে মুগ্ধ করলেন বরেণ্য শিক্ষাবিদ আব্দুল্লাহ আবু সায়ীদ। তারই একটি নুমনা তুলে ধরছি আনন্দ আলোর পাঠকদের জন্য।

চ্যানেল আই এর পক্ষ থেকে সম্মাননা গ্রহণ করেছেন। তাঁকে কিছু বলতে বলা হলো। শুরুতেই কথার জাদু ছড়িয়ে দিলেন। কথা চলছে। মন্ত্রমুগ্ধের মতো তাঁর কথা শুনছেন সবাই। হাস্যরসের মাধ্যমে কঠিন কথা সহজ করে বলছেন তিনি। এক পর্যায়ে বললেন- ‘আজীবন’ শব্দটা শুনলে মনে হয় এই বুঝি জীবন যায়রে…। জীবন যায় যাক… কিন্তু জীবন যে এতদিন ছিল আমি সেই আনন্দতো শেষ করতে পারি না। সম্মাননা ভালোবাসা থেকে আসে। মানুষের আদর থেকে আসে। আজ আমাকে যে সম্মাননা দেয়া হলো আমি নিশ্চিত এটা পাওয়ার যোগ্যতা আমার নাই। তবে এজন্য আমার খুউব ভালো লাগছে। খুউব আনন্দ হচ্ছে।

এবার কবিগুরুর জন্মদিন উপলক্ষে রবীন্দ্রমেলা বেশ জমেছিল। বিকেল সাড়ে ৪টায় বেলুন উড়িয়ে এই মেলার উদ্বোধন করা হয়। মেলার শুরুতে উদ্বোধন পর্ব শেষে শিক্ষাবীদ আবদুল্লাহ আবু সায়ীদ ও কণ্ঠশিল্পী তপন মাহমুদের। হাতে উত্তরীয়, ক্রেষ্ট ও সম্মাননা চেক তুলে দেন চ্যানেল আই এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক ফরিদুর রেজা সাগর, পরিচালক ও বার্তা প্রধান শাইখ সিরাজ, চ্যানেল আই পরিচালনা পর্ষদ সদস্য আবদুর রশিদ মজুমদার, জহিরউদ্দিন মাহমুদ মামুন ও মুকিত মজুমদার বাবু, আইএফআইসি ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শাহ আলম সারোয়ার, এবি ব্যাংকের ডেপুটি ম্যনেজিং ডিরেক্টর (মার্কেটিং) মশিউর রহমান চৌধুরী, কবি আসাদ চৌধুরী প্রমুখ। মেলা আয়োজনে সহযোগিতা করেছে এবি ব্যাংক ও আইএফআইসি ব্যাংক।

সম্মাননা গ্রহণ করে আবদুল্লাহ আবু সায়ীদ বলেন- এ সম্মাননা আমাকে না দিয়ে বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্রকে দিলে আরও বেশি খুশি হতাম। এটাই আমার সম্মানের স্থান। এ সময় মঞ্চে এসে উপস্থিত হন পুরস্কার কমিটির সদস্য রেজওয়ানা চৌধুরী বন্যা।  মঞ্চে ফরিদুর রেজা সাগর ঘোষণা দেন বিশ্ব সাহিত্য কেন্দ্রকে এক লাখ টাকার বই এবং দুস্থ রবীন্দ্র সঙ্গীতশিল্পীদের জন্য এক লাখ টাকা চ্যানেল আই থেকে প্রদান করা হবে। সম্মাননা গ্রহণ করে তপন মাহমুদ বলেন- দেশ বরেণ্য একজন ব্যক্তিত্বের সঙ্গে আমাকে সম্মানিত করা হলো, তাতে মনে হচ্ছে আমার উচ্চতা আকাশ  ছুঁয়েছে।

অনুষ্ঠান শুরু হয় ক্যামব্রিয়ান স্কুল এন্ড কলেজের শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণে নৃত্য পরিবেশনের মাধ্যমে। বিকেল ৪.৩০ মিনিটে চ্যানেল আই প্রাঙ্গণে ‘রবীন্দ্র মেলা’১৬ এর উদ্বোদনী পর্বে মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন চ্যানেল আই পরিচালনা পর্ষদ সদস্যবৃন্দ, নাট্য ব্যক্তিত্ব আতাউর রহমান, রামেন্দু মজুমদার, কবি হাবিবুল্লাহ সিরাজী, সৈয়দ সালাহউদ্দিন জাকি প্রমুখ। মেলায় এসেছিলেন বাংলা একাডেমির মহাপরিচালক শামসুজ্জামান খান, লায়লা হাসানসহ বিশিষ্টজনরা। অনুষ্ঠানে সঙ্গীত পরিবেশন করেন সাদি মহম্মদ, তপন মাহমুদ, রেজওয়ানা চৌধুরী বন্যা, আজিজুর রহমান তুহিন প্রমুখ।

মেলায় ‘প্রিয় রবীন্দ্রনাথের প্রেমের গান’ নামে রেজওয়ানা চৌধুরী বন্যার কণ্ঠে একটি অডিও সিডির মোড়ক উন্মোচন করেন মেলায় আগত অতিথিরা। ড. আনিুসুজ্জান নির্বাচিত এ সিডিতে রবীন্দ্রনাথের ১০টি গান রয়েছে। সিডিটি প্রকাশ করেছে ইমপ্রেস অডিও ভিশন। নবীন-প্রবীন শিল্পীদের পরিবেশনায় রবীন্দ্র সঙ্গীত, নৃত্য ছাড়াও রবীন্দ্র বিষয়ক ছবি এঁকেছেন শিল্পীরা। মেলায় আরও ছিলো ক্ষুদ্র ও কুটিরশিল্পের বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের প্রায় ১৫টি স্টল। মেলা উপস্থাপনা করেছেন অপু মাহফুজ ও মৌসুমী বড়ুয়া। পরিচালনা করেছেন আমীরুল ইসলাম ও শহীদুল আলম সাচ্চু। রাত ৭টা পর্যনত্ম মেলা সরাসরি সম্প্রচার করেছে চ্যানেল আই।

আনন্দ মুখর এই রবীন্দ্র মেলায় কবি গুরুর আদর্শ সারাদেশে আরও বেশী করে ছড়িয়ে দেয়ার আহবান জানান হয়।