আমার জন্মদিন সেভাবে পালন হয় না-বাপ্পারাজ

আমার জন্মদিন সেভাবে পালন হয় না-বাপ্পারাজ

1343
SHARE

আনন্দ আলো: ১১ মার্চ আপনার জন্মদিন। জন্মদিনটা কীভাবে পালন করেন?

বাপ্পারাজ: সাধারনত: আমার জন্মদিন পালন করা হয় না। আমরা সব সময় আব্বার জন্মদিনটা পালন করে থাকি। তবে গত বছর আমার জন্মদিনটা অন্যরকমভাবে পালিত হয়। আমার প্রথম পরিচালিত ‘কার্তুজ’ ছবির শুটিংয়ের সময় আব্বা-আম্মা আমার পরিবারের সবাই এসে হাজির। শুটিং স্পটেই জন্মদিন উদযাপন করা হয়। শুটিংয়ে সবার সঙ্গে দেখা হয়। কেক কাটা হয়। ইউনিটের সবাইকে নিয়ে বেশ আনন্দের সাথেই কেটে যায় জন্মদিনটা।

আনন্দ আলো: ছোটবেলার জন্মদিন এবং এখনকার জন্মদিনের মধ্যে কী পার্থক্য খুঁজে পান?

বাপ্পারাজ: ছোটবেলাও আমার জন্মদিন পালন করা হতো না। ছোটবেলা থেকে দেখে এসেছি বাসায় সব সময় আব্বার জন্মদিনটা খুব ঘটা করে পালন করা হতো। সেটা অনেক মজার, আনন্দের ছিল। তখন আমরা সবাই মিলে হৈচৈ করে আনন্দ করতাম আব্বার জন্মদিনে। কেক কাটা হতো। বাসায় আব্বার বন্ধু-বান্ধব, কলিগরা আসতেন। পাশাপাশি আত্মীয়-স্বজনরা আসতেন। সবাই মিলে অনেক আনন্দে কাটত দিনটি।

আনন্দ আলো: সবার আগে কে আপনাকে জন্মদিনে উইশ করে?

বাপ্পারাজ: স্ত্রী ও মেয়েরা সবার আগে জন্মদিনে উইশ করে। তারপর পরিবারের সদস্য, আত্মীয়-স্বজন, বন্ধু-বান্ধব এবং ভক্ত-শুভানুধ্যায়ীরা জন্মদিনে শুভেচ্ছা জানায়। ফুল নিয়ে আসে।

আনন্দ আলো: জন্মদিনে কী উপহার পেতে আপনার ভালো লাগে?

বাপ্পারাজ: জন্মদিনে পারফিউম উপহার পেতে আমার খুবই ভালো লাগে। আমার জন্মদিনে স্ত্রী আমাকে পারফিউম উপহার দেয়।